আইপিএলে যে তরুণদের দিকে চোখ থাকবে

প্রকাশ: ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০   

অনলাইন ডেস্ক

এবারের আইপিএল আসরে চোখ থাকবে বেশ কিছু তরুণের দিকে। তাদের মধ্যে অন্যতম জয়সাওয়াল (বাঁমে), বিষ্ণয় (বাঁ থেকে দ্বিতীয়), কমলেশ (বাঁ থেকে তৃতীয়) এবং শুভমান গিল।

এবারের আইপিএল আসরে চোখ থাকবে বেশ কিছু তরুণের দিকে। তাদের মধ্যে অন্যতম জয়সাওয়াল (বাঁমে), বিষ্ণয় (বাঁ থেকে দ্বিতীয়), কমলেশ (বাঁ থেকে তৃতীয়) এবং শুভমান গিল।

আইপিএলের ১৩তম আসর বসতে যাচ্ছে সংযুক্ত আরব আমিরাতে। বাংলাদেশ সময় শনিবার রাত আটটায় মাঠে গড়াবে প্রথম ম্যাচ। করোনাকালে শুরু হওয়া এবারের আইপিএলে চোখ থাকবে বেশ ক’জন তরুণ ভারতীয় ক্রিকেটারে।

যশস্বী জয়সাওয়াল: বয়স মাত্র ১৮ বছর। টপ অর্ডারে ব্যাট করেন। তাকে নিয়ে অনেক গল্পই বলেছে সংবাদ মাধ্যম। পানিপুরি বিক্রেতা থেকে নিখুঁত টেকনিকের ব্যাটসম্যান হয়ে উঠেছেন তিনি। সর্বশেষ অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে জয়সাওয়াল ছিলেন সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক। রাজস্থান রয়্যালস তাই ২ কোটি চার লাখ রুপিতে দলে নিয়েছে তাকে। এতো টাকা দিয়ে নিশ্চয় বেঞ্চে বসিয়ে রাখতে বাঁ-হাতি এই ব্যাটসম্যানকে দলে নেয়নি তারা।

আব্দুল সামাদ: জম্মু-কাশ্মিরের ক্রিকেটার সামাদ। তার বয়সও ১৮ বছর। ডান হাতি আব্দুল সামাদ অনেকটা ইউসুফ পাঠানের মতো। বড় বড় শট খেলতে পারেন তিনি এই বয়সেই। সানরাইজার্স হায়দরাবাদ তাকে ২০ লাখ রুপিতে দলে নিয়েছে। কম মূল্যে কার্যকরী ক্রিকেটার হায়দরাবাদ পেয়েছে এটা সামাদকে প্রমাণ করতে হবে।

আইপিএলে জম্মু-কাশ্মিরের ক্রিকেটার আব্দুল সামাদ। ছবি: গাফল নিউজ

রবি বিষ্ণয়: সর্বশেষ অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ থেকে ভারতের আরেকটি প্রাপ্তি রবি বিষ্ণয়। লেগ স্পিনার তিনি। অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ মাত করেছেন গুগলি দিয়ে। কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব তাকে দলে নিয়েছে ২ কোটি রুপিতে। সংযুক্ত আরব আমিরাতে তরুণ এই লেগিকে হেলাফেলা করার সুযোগ নেই। একাই ধসিয়ে দিতে পারেন প্রতিপক্ষকে।

পৃথ্বি শ: তিনি প্রমাণিত ব্যাটসম্যান। শচীন টেন্ডুলকারের সঙ্গে তুলনা টানা হয় ওপেনার পৃথ্বী  শ‘কে।  আইপিএলে সেঞ্চুরিও পেয়ে গেছেন। আইপিএলের সর্বকণিষ্ঠ ওপেনার হওয়ার রেকর্ড তার। কম বয়সে যৌথভাবে ফিফটির রেকর্ড গড়েছেন। গত মৌসুমে করেছেন ২২ গড়ে ও ১৩৪ স্ট্রাইক রেটে ৩৫৩ রান। তবে দিল্লি ক্যাপিটালসের হয়ে এবারও তাকে প্রমাণ দিতে হবে। কারণ মধ্যে ডোপ নেওয়া ফর্মহীনতাসহ নানান বিতর্কের মধ্যে দিয়ে যেতে হয়েছে তাকে।

কমলেশ নাগারকটি: ইনজুরির কারণে ২০১৮ সালের পরে পেশাদার ক্রিকেট খেলেননি ২০ বছরের নাগারকটি। ২০১৮ অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ থেকে নজরে আসা এই ক্রিকেটার ডানহাতে পেস বলের ঝড় তুলতে পারেন। ১৮ বছরেই নিয়মিত ১৪০ গতি তুলে নজরে এসেছিলেন তিনি। এবার আইপিএলের মঞ্চে নিজেকে চেনানোর পালা তার। নাগারকটি খেলবেন দিল্লি ক্যাপিটালসে।

শুভগম গিল: কলকাতা নাইট রাইডার্সের ২১ বছর বয়সী ব্যাটসম্যান শুভমন গিল। তাকে তিন ফরম্যাটেই ভারতের লম্বা দৌড়ের ঘোড়া ভাবা হচ্ছে। আইপিএলের এবারের আসরে টপ অর্ডারে কলকাতার অন্যতম ভরসা শুভমন। ভারতের হয়ে দুটি ওয়ানডে খেলা এবং টেস্ট দলে ডাক পাওয়া দীর্ঘদেহি এই তরুণকে এবার নিজেকে প্রমাণ দিতে হবে।